Spread the love

রাস্তায় মারামারির ঘটনায় উত্তরা পূর্ব থানায় করা মামলায় ইয়াসিন আরাফাত অপু ওরফে টিকটক অপুসহ ছয়জনের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র গ্রহণ করেছেন আদালত। গত ১১ অক্টোবর ঢাকা মহানগর হাকিম মোহাম্মদ জসীমের আদালত মামলার অভিযোগপত্র গ্রহণ করেন বলে দেরিতে পাওয়া খবরে জানা গেছে। তবে এই মামলায় পলাতক থাকায় আসামি মো. রনি ওরফে সৈয়দ রাকিবুর রহমানের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করেন আদালত। এ বিষয়ে প্রতিবেদন দাখিলের জন্য আগামী ১৮ নভেম্বর দিন ধার্য রয়েছে।

চলতি বছরের ৯ ফেব্রুয়ারি উত্তরা পূর্ব থানার উপপরিদর্শক ও মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা মো. আজিজুর তালুকদার টিকটক অপুসহ ছয়জনের বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করেন। অভিযোগপত্রে উল্লেখিত অন্য আসামিরা হলেন মো. শাকিল হোসেন (২৬), মো. শাহদত হোসেন (৩০), মো. সানি (২২), মো. নাজমুল (২১) ও মো. রনি ওরফে সৈয়দ রাকিবুর রহমান (২৫)।

আসামি মুন্না ওরফে লুত্ফর রহমান (২২), জমির উদ্দিন (৪৫), মো. সুমন শেখ ওরফে পাপনের (২৭) বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রমাণের পক্ষে কোনো নিরপেক্ষ প্রত্যক্ষ সাক্ষী না পাওয়ায় এবং ঘটনার সঙ্গে অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায় তাঁদের অব্যাহতি দেওয়ার আবেদন করা হয়। ১১ অক্টোবর আদালত আবেদন গ্রহণ করে তাঁদের অব্যাহতি দেন।  

এ ঘটনায় গত বছরের ৩ আগস্ট উত্তরা পূর্ব থানায় করা মামলার এজাহারে বাদী এস এম মাহবুব বলেন, ২০২০ সালের ২ আগস্ট তাঁর ছেলে মেহেদী হাসান রবিন (৩০) সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে শ্বশুরবাড়ি উত্তরা থেকে ফিরছিল। উত্তরার ৬ নম্বর সেক্টরের আলাউল এভিনিউয়ের ৫২ নম্বর বাসার সামনের পাকা রাস্তায় পৌঁছে রবিন। সেখানে রাস্তা আটকে টিকটক ভিডিও করা হচ্ছিল। রবিনসহ তিনজন প্রাইভেট কারে বসে থাকা অবস্থায় হর্ন দিলে আসামি শাকিল, শাহদত হোসেন, সানি, টিকটক অপু, নাজমুল, রনি, মুন্না ও জমির উদ্দিন ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠেন এবং গাড়ি থেকে নামিয়ে তাঁদের মারধর করেন।

About Author

admin

Leave a Reply

Your email address will not be published.